করোনা আক্রান্ত তরুনীর ‘মৃ’ত’ ফুসফুসে প্রাণ দান! বিরল ঘটনার সাক্ষী থাকলো কলকাতা

করোনা ভাইরাস ক্রমশ ভারতের ওপরও আধিপত্য স্থাপন করেই চলেছে। প্রতিদিন আক্রান্ত হচ্ছে হাজার হাজার মানুষ এবং মৃত্যুও হচ্ছে অনেক। এবার একটি নজিরবিহীন ঘটনা ঘটলো। করোনা আক্রান্ত তরুণীর মৃত ফুসফুসকে ECMO সাপোর্টে বাঁচিয়ে তুললেন কলকাতার চিকিৎসকরা।

ভারতের মধ্যে ২৪ বছর বয়সী এই তরুণী প্রথম করোনা রোগী যিনি ECMO সাপোর্টে প্রাণ ফিরে পেয়েছেন। এর আগে এর আগে এইমস দিল্লি ও চেন্নাইয়ের একটি বেসরকারি হাসপাতালের ECMO সাপোর্টে দু’জন রোগীকে রাখা হয়েছিল কিন্তু তারা সুস্থ হননি, দুজনেই মারা যান।

কালিঘাটের ওই তরুণী গত ১৭ ই মে খুব জ্বর এবং বিশাল শ্বাসকষ্ট নিয়ে ঢাকুরিয়ার বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়। এই তরুণীকে যখন হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তখন তরুণীর ‘ফুসফুস’ প্রায় অকেজো হবার মুহূর্তে। একবার ফুসফুস অকেজো হয়ে গেলে অনিবার্য মৃত্যু।

তরুণীর শরীরে অক্সিজেনের পরিমাণ খুব কম হয়ে যাওয়ায় তাকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়। কিন্তু তাতেও কিছু লাভ না দেখে চিকিৎসকরা তার পরের দিন অর্থাৎ ১৮ ই মে তরুণীকে একমো সাপোর্ট দেয়।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, তরুনীকে টানা ৩০০ ঘণ্টা অর্থাৎ ১২ দিন মত একমো সাপোর্ট দেয়। তারপর তরুণীর শারীরিক উন্নতি দেখে চিকিৎসকরা তরুণীকে একমো সাপোর্ট থেকে সরিয়ে ভেন্টিলেশনে নেয়। তারপর তরুণীকে ভেন্টিলেশন থেকে আইসিইউ এবং আইসিইউ থেকে এইচডিও এ স্থানান্তরিত করা হয়। তারপর তরুণী সুস্থ হয় এবং সোমবার তাকে হাসপাতাল থেকে ছুটি দেয়। চিকিৎসকরা দাবি করেছেন এই শহরে এটি বিরল ঘটনা।

আপনার কাছে পোষ্ট টি কেমন লেগেছে সংক্ষেপে কমেন্টেস করে জানাবেন ৷ T=(Thanks) V= (Very good) E= (Excellent) আপনাদের কমেন্ট দেখলে আরো ভালো ভালো পোষ্ট দিতে উৎসাহ পাই।

About Lipu Chowdhury

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *