Saturday , 19 September, 2020
ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করার উপায়

ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করার সবথেকে সহজ উপায় জেনে নিন

আজকে আমি দেখাবো কিভাবে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করা যায় মোবাইল বা কম্পিউটার দিয়ে। খুব সহজেই বিনামূল্যে নিজের অভিজ্ঞতাগুলো সবার মাঝে শেয়ার করতে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করতে পারবেন। ইউটিউব সারা বিশ্বের মধ্যে জনপ্রিয়তার তালিকায় দ্বিতীয় নাম্বারে রয়েছে। আর তাই এখানে আপনি ভিডিও আপলোড করেন তাহলে লক্ষ কোটি মানুষ আপনার ভিডিও দেখতে পাবে।

আর ইউটিউব সারা পৃথিবীতে ভিডিও প্লাটফর্ম হিসেবে প্রথম স্থান কেরে নিয়েছে। আমি ইউটিউব নিয়ে অনেক আর্টিকেল পাবলিশ করেছি এই সাইটে। কিভাবে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করতে হয়? ইউটিউব থেকে টাকা আয় করার উপায় ইত্যাদি নিয়ে এই সাইটে আরো ব্লগ পোস্ট দেখতে পাবেন। চাইলে সেগুলো দেখে আসতে পারেন।

ইউটিউবে ভিডিও আপলোড

আপনি হয়তো জানেন ইউটিউব সকল ডিভাইসের জন্য সাপোর্ট করে। আর এরজন্য ভিন্ন ভিন্ন ভাবে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করা হয়। কম্পিউটার দিয়ে ব্রাউজারের মাধ্যমে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করতে পারবেন, আর মোবাইল দিয়ে অ্যাপের মাধ্যে ভিডিও আপলোড করে থাকে মানুষ। আর আমি এই পদ্ধতিতেই ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করার নিয়ম দেখাবো।

ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করার আগে আপনার একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরী করে নিতে হবে। আর চ্যানেল খোলা খুবই সহজ কাজ। একটি জিমেইল একাউন্ট তৈরী করে ইউটিউব ভিজিট করুন আর সাইন আপ করুন তাহলেই একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি হয়ে যাবে। কিন্তু এটা হলো মোবাইলের নিয়ম।

কম্পিউটার দিয়ে করতে হলে সাইন আপ করে “Your Channel”-এ ক্লিক করতে হবে। এরপর চ্যানেলের নাম দিয়ে ওকে করলেই আপনার জন্য একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি হয়ে যাবে। এখন চাইলেই যেকোনো ভিডিও আপলোড করতে পারবেন। আর সবার কাছে আপনার ভিডিও শেয়ার পৌঁছে যাবে।

কম্পিউটার দিয়ে ইউটিউব সাইন আপ

শুরুতেই আপনার ইউটিউবে ভিজিট করার জন্য যেকোনো একটি ব্রাউজার সিলেক্ট করতে হবে। আর সেখান থেকে ইউটিউবে ভিজিট করতে হবে। আর চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করার জন্য ইউটিউব সাইন আপ করা থাকবে হবে। যেই চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করতে চান সেটাই সাইন আপ করে নিবেন।

যদি সাইন আপ করতে না পারেন তাহলে ইউটিউবে ভিজিট করে উপরের ডানদিকে একটি প্রোফাইল আইকন বা সাইন ইন লেখা দেখতে পাবেন সেখানে ক্লিক করুন। জিমেলের পাসওয়ার্ড দিয়ে সাইন ইন করতে হবে। আর যদি ব্রাউজারে জিমেইল লগইন করা থাকে তাহলে পূনরায় জিমেইলের পাসওয়ার্ড দেওয়া লাগবে না। ছবি আকারে দেখার জন্য নিচের স্টেপ ফলো করুন-

স্টেপ-১

how to upload youtube video

স্টেপ-২

ways to upload videos to youtube

স্টেপ-৩

upload videos to youtube

হয়েগেছে আপনার ইউটিউব সাইন আপ করা। এবার আপনার চ্যানেলে প্রবেশ করে ভিডিও আপলোড করতে হবে। কিন্তু এর আগে আপনি যদি ইউটিউব চ্যানেল না খুলে থাকেন তাহলে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন না। তাই ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করে নিন।

ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করার কিছু টিপস

আপনি ইউটিউবে কেনো ভিডিও আপলোড করবেন? টাকা ইনকাম করার জন্য? সবার কাছে আপনি পরিচিত হওয়ার জন্য? বিনামূল্যে সবার কাছে আপনার অভিজ্ঞতা শেয়ার করার জন্য? এখন আপনার সিদ্ধান্ত নিতে হবে কেন ইউটিউব ভিডিও আপলোড করবেন।

আমি এই প্রশ্নটিগুলো এরজন্য করছি যে কারণ ইউটিউব ভিডিও আপলোড করলেই সবার কাছে ভিডিও পৌঁছাবে না। এরজন্য ভালো ভাবে ইউটিউব ভিডিও এসইও করতে হবে। আপনি যদি ইউটিউব চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করে টাকা ইনকাম করতে চান তাহলে অবশ্যই ভিডিওটি এসইও করে তারপর পাবলিশ করতে হবে।

ভিডিওর কোয়ালিটি ভালো হতে হবে যদি সবার কাছে ভিডিওর ভিউ করাতে চান। আকর্ষনীয় থামবনাইল ও দুর্দান্ত একটি টাইটেল দিতে হবে। যেটা দেখা মাত্র সবাই ক্লিক করে ভিডিওটি দেখবে। আর হাই কোয়ালিটি ট্যাগ যুক্ত করতে হবে যেটা “Tubebuddy Extension”-দ্বারা করতে পারবেন।

কম্পিউটার দিয়ে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড

আপনি এখন সফল ভাবে ইউটিউবে সাইন আপ করে নিয়েছেন। তাই উপরের ডান দিকে একটি প্রোফাইল আইকন অবশ্যই দেখতে পাচ্ছেন। সেখানে ক্লিক করে “Your Channel”-এ ক্লিক করুন।

ইউটিউব ভিডিও আপলোড

আপনি এখন ইউটিউব সেটিং এর এমন একটি স্থানে এসেছেন যেখান থেকে ইউটিউব চ্যানেলের বিভিন্ন পরিবর্তন করতে পারবেন। যেমন- চ্যানেল ভেরিফাই, লোগো ও ব্যানার চ্যাঞ্জ ইত্যাদি। আর যেটা মূল বিষয় সেটা হলো এখান থেকে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করা যাবে। এরজন্য “UPLOAD VIDEO”-তে ক্লিক করতে হবে।

কিভাবে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করব

এখন আপনার সামনে নতুন একটি এন্টারপেজ শো করবে যেখানে ভিডিও আপলোড করার কথা বলে হবে। আপনি চাইলে যেকোনো ভিডিও “Drag and drop”-করে গোল বৃত্তের মধ্যে ছেড়ে দিতে পারেন। অন্যথায় “SELECT FILES”-এ ক্লিক করুন।

ইউটিউব ভিডিও আপলোড

এবার কম্পিউটারে একটি উইনডো ওপেন হবে আর যেখানে আপনার ভিডিও রয়েছে সেখানে যেতে হবে। এরপর আপনার নির্দিষ্ট ভিডিওটি সিলেক্ট করে ওপেন এ ক্লিক করতে হবে।

কম্পিউটার দিয়ে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড

এখন আপনার ভিডিও ইউটিউবে আপলোড করার করার জন্য প্রস্তুত করতে হবে ৩টি স্টেপ পার করে। যেমন- “Details”, “Video elements”, “Visibility”। প্রত্যেকটা স্টেপ পূরণ করে ভিডিওটি পাবলিশ করতে হবে। প্রথম স্টেপে ভিডিওর টাইটেল, ডেস্ক্রিপশন, থামবনাইল, অডিয়েন্স, ট্যাগস, ক্যাটাগরি ইত্যাদি ঠিক করতে হবে এবং “Next”-বাটনে ক্লিক করতে হবে।

youtube video upload

দ্বিতীয় স্টেপে আপনার ভিডিওর মধ্যে বিভিন্ন এডিট নিয়ে আসতে পারবেন। শেষ মুহুর্তে ভিডিওটি কেমন হবে, ভিডিওর মধ্যে কোনো লোগো দিবেন কি না সেটা নির্ধারন করে দিতে পারবেন। আর সর্বশেষ তৃতীয় নাম্বারে আপনার কাছ থেকে পার্মিশন নেওয়া হবে ভিডিওটি ইউটিউবে পাবলিশ করতে চাচ্ছেন কি না। চাইলে প্রাইভেট করেও আপনার চ্যানেলে রেখে দিতে পারবেন।

কম্পিউটারের মাধ্যমে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড

এবার আপনি সফলভাবে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করতে পেরছেন। আপনাকে অভিনন্দন। কম্পিউটারে ব্রাউজারের মাধ্যমে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করার নিয়ম আশা করি জেন গেছেন। এখন চাইলে আপনি যেকোনো সময় ইউটিউব ভিডিও আপলোড করতে পারবেন।

মোবাইল দিয়ে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড

আপনি যদি মোবাইল দিয়ে ইউটিউবে ভিডিও আপোডল করতে চান তাহলে আপনার মোবাইল ফোনে ইউটিউব অ্যাপস থাকতে হবে। যদি না তাহলে গুগল প্লে-স্টোর থেকে ডাউনলোড করে নিতে পারেন। এরপর ইউটিউবে ভিজিট করতে হবে। যদি আপনার জিমেইল গুগল প্লে-স্টোরে লগইন করা থাকে তাহলে ইউটিউবে নিজের চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন।

ইউটিউব চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করার জন্য ইউটিউবে ভিজিট করুন। এরপর আপনার চ্যানেলের জিমেইল দিয়ে সাইন ইন করে নিন। এবার উপরের দিকে একটি আপ অ্যারো দেখতে পাবেন যেটার মধ্যে ক্লিক করলে আপনার মোবাইলের মেমোরি কার্ডে নিয়ে যাওয়া হবে। আর সেখান থেকে আপনার নির্দিষ্ট ভিডিওটি সিলেক্ট করতে হবে।

মোবাইল দিয়ে উটিউবে ভিডিও আপলোড

এখন আপনার ভিডিওটি  ইউটিউবে পাবলিশ করার জন্য বিভিন্ন অপশন আসবে। ভিডিওর টাইটেল, ডেসক্রিপশন দিতে হবে। আর পাবলিশ অপশনটি অবশ্যই সিলেক্ট থাকতে হবে। এরপর উপরের ডান দিকে একটি রাইট অ্যারো বাটন দেখতে পাবেন। সেটার মধ্যে ক্লিক করলেই আপনার ভিডিও আপলোডিং শুরু হয়ে যাবে এবং ইউটিউবে ভিডিও পাবলিশ হয়ে যাবে।

মোবাইল ফোনের মাধ্যমে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড

এভাবেই আপনি মোবাইলের মাধ্যমে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন। কিন্তু মোবাইলে ইউটিউব অ্যাপস দিয়ে ভিডিও আপলোড করলে তেমন ভালো ভাবে এসইও করে আপলোড করতে পারবেন না। তারজন্য আপনি মোবাইলের যেকোনো ব্রাউজার দিয়ে ইউটিউবে ভিজিট করে ভিডিও আপলোড করতে পারেন।

ব্রাউজারের মাধ্যমে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করলে সবথেকে ভালো হবে। কারণ ব্রাউজারে “Tubebuddy Extension”-যুক্ত করতে পারবেন। ফলে আপনার ভিডিওর মধ্যে বিভিন্ন ট্যাগ লাগাতে পারবেন। যেগুলোর মাধ্যমে আপনার ইউটিউব ভিডিও খুব সহজেই সবার কাছে পৌঁছে যাবে এবং ভিডিও ভিউস বেশি হবে।

উপসংহার

যারা মোবাইল কম্পিউটার বা ল্যাপটপের মাধ্যমে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করতে চান তাদের জন্য আজকে এই আর্টিকেল শেয়ার করেছি। অনেকেই ইউটিউব ভিডিও আপলোড করে নিজেকে সবার কাছে পরিচিত করতে চায় এবং ইউটিউব থেকে আয় করতে চায় বিভিন্ন শিক্ষামূলক ভিডিও পাবলিশ করে। তাই আপনি আজকে এখান থেকে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করার উপায় জেনে নিয়েছে। আর্টিকেলটি শেষ পর্যন্ত পড়ার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ!

About SM Simol

আমি সিমুল, বিশ্ববিদ্যালয় পড়াশোনা করি ও এর পাশাপাশি আমি একজন আর্টিকেল রাইটার। বিভিন্ন বিষয় নিয়ে এই সাইটে ব্লগ পোস্ট পাবলিশ করি ও "BanglaAdvice.Com"-সাইটের (এডমিন) আমি। আমার সৃজনশীল মেধাশক্তিকে কাজ লাগিয়ে আর্টিকেল তৈরি করে থাকি এবং বিভিন্ন সাইট এর আলোচিত খবর গুলো প্রকাশ করে থাকি ।

Check Also

ইউটিউব থেকে আয় করার উপায়

ইউটিউব থেকে আয় করা যায় কিভাবে? [ ইউটিউবে আয়ের সহজ উপায় ]

বর্তমানে ইউটিউব সারা বিশ্বে সবার কাছে জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। এই ভিডিও প্লাটফর্ম ইউটিউব থেকে আয় ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *